খেলা

করোনার থাবা: তবু আয়ারল্যান্ড সিরিজ নিয়ে আশাবাদি বিসিবি

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট

করোনাকালিন সময়ের ক্রিকেটে বড় এক ঘটনা ঘটে গেল চট্টগ্রামে। এক ক্রিকেটার করোনায় আক্রান্ত হওয়ার কারণে বাংলাদেশ ইমার্জিং দল ও আয়ারল্যান্ড উলভেসের মধ্যকার আনঅফিসিয়াল প্রথম ওয়ানডেটি মাঝপথেই বাতিল হয়ে গেছে। তবে এক ম্যাচ বাতিল হলেও সিরিজের বিষয়ে আশাবাদি বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)।

বিজ্ঞাপন

শুক্রবার (৫ মার্চ) বাংলাদেশ ইমার্জিং দলের বিপক্ষে পাঁচ ম্যাচ ওয়ানডে সিরিজের প্রথমটি খেলতে নেমেছিল আয়ারল্যান্ড উলভস। ম্যাচ চলাকালিন সময়ে সফরকারী দলের ক্রিকেটারদের করোনার পরীক্ষার রিপোর্ট সংশ্লিষ্টদের হাতে এসে পৌঁছে, যাতে দেখা যায় আয়াইরিশ এক ক্রিকেটারের শরীরে বাসা বেঁধেছে করোনা। সঙ্গে সঙ্গেই ম্যাচ বন্ধ করে দেওয়া হয়। পরে সেটা বাতিল ঘোষণা করা হয়।

ম্যাচ বন্ধ হওয়ার আগে ওই ক্রিকেটার স্বাভাবিকভাবেই অন্য ক্রিকেটারদের সঙ্গে মিশেছেন। ফলে ভাইরাস ছড়িয়ে যাওয়ার ভালো সম্ভবনা রয়েছে। যদি সেটাই হয় তবে কী বাতিল হতে যাচ্ছে বাংলাদেশ ইমার্জিং দল বনাম আয়ারল্যান্ড উলভেসের মধ্যকার লম্বা সিরিজটি? বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) প্রধান নির্বাহী নিজম উদ্দিন চৌধুরী সুজন তেমন সম্ভবনা দেখছেন না। সিরিজের বাকি ম্যাচগুলো ঠিক সময়েই অনুষ্ঠিত হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন তিনি।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলার সঙ্গে আলাপকালে নিজাম উদ্দিন বলছিলেন, ‘দেখেন এখন নিউ নরমালের সময়। একজন কোভিড পজিটিভ হয়েছে বলে সিরিজ বাতিল করার কিছু নেই। আমরা কোভিড প্রটোকল অনুযায়ী ব্যবস্থা নিচ্ছি। আশা করছি পরবর্তী ম্যাচগুলো ঠিক সময়েই অনুষ্ঠিত হবে।’

সফরে বাংলাদেশ ইমার্জিং দলের বিপক্ষে একটি চার দিনের ম্যাচ, পাঁচটি ওয়ানডে ও দুটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলার কথা রয়েছে আয়ারল্যান্ড উলভসের। চার দিনের ম্যাচটি ইতোমধ্যেই খেলে ফেলেছেন সফরকারীরা।

বিজ্ঞাপন

উল্লেখ্য, শুক্রবার চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে টস হেরে প্রথমে ব্যাটিং করতে নেমেছিল বাংলাদেশ ইমার্জিং দল। ম্যাচ বন্ধ হওয়ার আগে ভালোই এগুচ্ছিল স্বাগতিকরা। ৩০ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে ১২২ রান তোলে বাংলাদেশ ইমার্জিং দল। তারপরই বন্ধ হয়ে যায় খেলা।

সারাবাংলা/এমআরএফ/এসএইচএস


Source link

আরো সংবাদ

Back to top button