অপরাধ

শাহরিয়ার কবিরের নামে ভুয়া অ্যাকাউন্ট, থানায় জিডি

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির সভাপতি, লেখক ও সাংবাদিক শাহরিয়ার কবিরের নামে ভুয়া ফেসবুক অ্যাকাউন্ট খোলা হয়েছে। এ বিষয়ে তিনি বনানী থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন।

বিজ্ঞাপন

একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির সাধারণ সম্পাদক কাজী মুকুল সারাবাংলাকে জানিয়েছেন, বুধবার (৪ মার্চ) এই জিডি করেন শাহরিয়ার কবির।

বনানী থানায় এ সংক্রান্ত অভিযোগে (জিডি নম্বর ৩৩৬) শাহরিয়ার কবির বলেন, ‘গত একমাস ধরে অত্যন্ত উদ্বেগের সঙ্গে লক্ষ করছি, কে বা কারা আমার নামে একটি ভুয়া ফেসবুক অ্যাকাউন্ট খুলেছে। জনৈক ইয়াসিন রাজ হেলাল আমার ছবি ও জীবনীসহ এই অ্যাকাউন্টটি খুলেছেন, যার উদ্দেশ্য শুধু আমার বিরুদ্ধে কুৎসা প্রচার নয়, একইসঙ্গে এটি ব্যবহার করে সরকার ও রাষ্ট্রবিরোধী গভীর কোনো ষড়যন্ত্রমূলক কার্যক্রম পরিচালনা করতে পারে বলে আমি মনে করি। প্রসঙ্গত, আমি কখনো ফেসবুকে ছিলাম না এবং কখনো ফেসবুকে আমি কোনো অ্যাকাউন্ট খুলিনি।’

বিজ্ঞাপন

তিনি বলেন, “ইয়াসিন রাজ হেলাল কার নির্দেশে, কী উদ্দেশ্যে আমার নামে এই ভুয়া অ্যাকাউন্ট খুলেছেন এবং কারা এ ধরনের রাষ্ট্রবিরোধী চক্রান্তে নিয়োজিত আছে, তাকে গ্রেফতার করলেই বিষয়টি জানা যাবে। সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন বর্তমান সরকারবিরোধী ও বিএনপি-জামায়াতে ইসলামী সমর্থক ‘আল জাজিরা’র রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভুয়া প্রামাণ্যচিত্রের প্রতিবাদ করার পর আমার নামে এই ভুয়া ফেসবুক অ্যাকাউন্টের কার্যক্রম দেশে-বিদেশে আমার বিপুলসংখ্যক বন্ধু ও শুভানুধ্যায়ীর নজরে এসেছে।”

একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, আমরা অবিলম্বে ইয়াসিন রাজ হেলালের গ্রেফতার ও বিষয়টি ফেসবুক কর্তৃপক্ষকে জানিয়ে অ্যাকাউন্টটি বন্ধ করার উদ্যোগ নিতে সরকারের সংশ্লিষ্ট বিভাগের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি।

বিজ্ঞাপন

‘সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে স্বাধীনতাবিরোধী মৌলবাদী সাম্প্রদায়িক অপশক্তি ক্রমাগত আমাদের প্রতি কদর্য ভাষায় মিথ্যা প্রচারণা চালাচ্ছে। ওয়াজের নামে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে যেসব রাষ্ট্রবিরোধী, মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস, চেতনা ও সংবিধানবিরোধী এবং জঙ্গী মৌলবাদী সন্ত্রাসী ও সাম্প্রদায়িক বিদ্বেষমূলক বক্তব্য রয়েছে, সেগুলো আমরা অবিলম্বে বন্ধ করারও দাবি জানাচ্ছি,’— বলা হয় বিজ্ঞপ্তিতে।

সারাবাংলা/ইএইচটি/টিআর


Source link

আরো সংবাদ

Back to top button