রাজধানী

৭ মার্চ বাঙালি জাতির জন্য অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ: শেখ তাপস

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: ঐতিহাসিক ৭ মার্চ বাঙালি জাতির জন্য অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ বলে মন্তব্য করেছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস।

বিজ্ঞাপন

রোববার (৭ মার্চ) দুপুরে ধানমন্ডির ৩২ নম্বরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণের মাধ্যমে শ্রদ্ধা জানানোর পর সাংবাদিকদের এ কথা বলেন তিনি।

ডিএসসিসি মেয়র বলেন, ৭ মার্চ জাতির জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ও তাৎপর্যপূর্ণ। ১৯৭১ সালের ৭ মার্চ বাঙালি জাতির অবিসংবাদিত নেতা, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান একটি নিরস্ত্র জাতিকে সশস্ত্র যুদ্ধের মাধ্যমে স্বাধীনতার আহ্বান জানিয়েছিলেন। এই ৭ মার্চের ফলশ্রুতিতে আমরা  পেয়েছি ২৬শে মার্চের স্বাধীনতা দিবস। পরবর্তীতে ১৬ই ডিসেম্বর বিজয় দিবসের মাধ্যমে আমরা আমাদের কাঙ্ক্ষিত স্বাধীনতা অর্জন করেছি।

বিজ্ঞাপন

এবার ৭ মার্চ ও স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী এবং জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী জাতীয়ভাবে উদযাপন করা হচ্ছে জানিয়ে ডিএসসিসি মেয়র বলেন, আজ জাতি স্বাধীনতার ৫০ বছর পালন করছে এবং স্বাধীনতার সুফল ভোগ করছে। আজকের এই দিনে আমি বিনম্র শ্রদ্ধায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে শ্রদ্ধা নিবেদন করছি। পাশাপাশি সকল মুক্তিযোদ্ধা ও জাতীয় নেতা, যারা মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে আমাদেরকে স্বাধীনতা এনে দিয়েছেন তাদের প্রতি শ্রদ্ধা জানাচ্ছি।

বিএনপি ঐতিহাসিক ৭ মার্চ পালন করছে, তা কিভাবে দেখছেন— সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে শেখ তাপস বলেন, আমি তাদেরকে সাধুবাদ জানাই। দেরিতে হলেও তারা অনুধাবন করতে পেরেছে যে, ঐতিহাসিক দিবসগুলো জাতির সঙ্গে অঙ্গাঅঙ্গিভাবে জড়িত এবং তা সঠিকভাবে পালনের মাধ্যমেই আমরা নতুন প্রজন্মকে সঠিক ইতিহাস জানাতে পারি।

বিজ্ঞাপন

বিএনপির একদিকে সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন আবার অন্যদিকে আন্দোলনের ডাক দেওয়ার বিষয়টি কিভাবে দেখছেন— জানতে চাইলে শেখ তাপস বলেন, তারা মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসকে বিলীন করে দেওয়ার জন্য দীর্ঘদিন চেষ্টা করেছিল কিন্তু সফল হতে পারেনি। আবার ঐতিহাসিক দিবসগুলো যে তাৎপর্য বহন করে, তা যে জাতির অন্তরে স্থাপিত, সেই বিষয়টি তারা বিলম্বে হলেও বুঝতে পেরেছে, অনুধাবন করতে পেরেছে। আন্দোলনের ডাক তাদের নেতাকর্মীদেরকে উৎসাহিত করে রাখা বা সংগঠনের প্রতি আকর্ষণীয় করে রাখার একটি কূটকৌশল মাত্র।

এর আগে বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের সদস্য সচিব হিসেবে ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস ‘বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ’ এর ব্যানারে ধানমন্ডি-৩২ নম্বরের জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা জানান এবং পরে নগর ভবনে জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধাঞ্জলি জানান।

বিজ্ঞাপন

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে ডিএসসিসির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এ বি এম আমিন উল্লাহ নুরী, প্রধান বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা এয়ার কমডোর মো. বদরুল আমিন, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কাজী মোর্শেদ হোসেন কামাল, সচিব আকরামুজ্জামান, পরিবহন মহাব্যবস্থাপক বিপুল চন্দ্র বিশ্বাস, প্রধান সম্পত্তি কর্মকর্তা রাসেল সাবরিন, প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা আরিফুল হক, অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী মো. জাফর আহমেদ উপস্থিত ছিলেন।

সারাবাংলা/এসএইচ/এসএসএ


Source link

আরো সংবাদ

Back to top button