আন্তর্জাতিক

ব্রাজিলে করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক

ব্রাজিলে করোনা পরিস্থিতি দিনকে দিন নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাচ্ছে। দক্ষিণ আমেরিকার দেশটিতে এখন দিনে দুই হাজারের বেশি মানুষ মারা যাচ্ছেন। বুধবার (১০ মার্চ) ব্রাজিলে করোনায় মারা গেছেন দুই হাজার ২৮৬ জন। খবর ডয়চে ভেলে।

বিজ্ঞাপন

দেশটিতে নতুন ধরনের ছোঁয়াচে ভাইরাসের প্রকোপ বেড়েছে। বিশেষজ্ঞদের মতে, এ কারণে পরিস্থিতির আরও অবনতি হচ্ছে। এখনো পর্যন্ত করোনা আক্রান্ত হয়ে দেশটিতে মারা গেছেন দুই লাখ ৬৮ হাজার ৩৭০ জন।

এদিকে করোনা মোকাবিলার পদক্ষেপ নিয়ে বিরোধীদের তোপের মুখে পড়েছেন প্রেসিডেন্ট জাইর বলসোনারো। বিরোধীরা করোনাকালে প্রেসিডেন্টের যাবতীয় সিদ্ধান্ত নিয়ে প্রশ্ন তুলতে শুরু করেছেন। এ ব্যাপারে সোচ্চার হয়েছেন লুলু ডি সিলভা। তিনি বলেছেন, বলসোনারো একের পর এক বোকার মতো সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন।

বিজ্ঞাপন

জাইর বলসোনারোকে ব্রাজিলের অনেকেই অগণতান্ত্রিক, বর্ণবাদী এবং সমকামীবিদ্বেষী বলে উল্লেখ করে থাকেন। তার নেওয়া নানা পদক্ষেপ দেশের জন্য ক্ষতিকর বলেও মনে করেন অনেকে। এবার তাই রাজপথে নেমেছেন বিভিন্ন ক্লাবের ফুটবলপ্রেমীরাও। ব্রাজিলের অন্যতম জনপ্রিয় ক্লাব কোরিন্থিয়ান্সের ফ্যান রোজারিও বাসেত্তো বলছেন, মানবতার এই শত্রুর বিরুদ্ধে সবাইকে রুখে দাঁড়াতে হবে।

অন্যদিকে, বুধবার (১১ মার্চ) প্রেসিডেন্ট বলসোনারোকে মাস্ক ব্যবহার করতে দেখা গেছে। এক মাসের মধ্যে এই প্রথম তাকে মাস্ক পরিহিত অবস্থায় বাইরে দেখা গেল বলে জানিয়েছে ডয়চে ভেলে।

বিজ্ঞাপন

এর আগে, বলসোনারো করোনা ভাইরাসকে পাত্তা দেননি। গত সপ্তাহেও তাকে বলতে শোনা গেছে, করোনা নিয়ে কেউ যেনো ঘ্যানঘ্যান না করে।

অপরদিকে, করোনার প্রকোপ বাড়ায় ব্রাজিলের স্বাস্থ্য ব্যবস্থার ওপর প্রবল চাপ পড়েছে। হাসপাতালে রোগীর স্থান সংকুলান হচ্ছে না। স্বাস্থ্য ব্যবস্থা ভেঙে পড়ার মুখে। এ ব্যাপারে চিকিৎসক ও গবেষক মার্গারেট ডালকোলমো ডয়চে ভেলেকে বলেছেন, ২০২১ ব্রাজিলের জন্য খুবই কঠিন বছর হতে চলেছে।

বিজ্ঞাপন

স্বাস্থ্য বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, বুধবার দেশটিতে প্রায় ৮০ হাজার মানুষ নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। দ্রুত সংক্রমণক্ষম স্ট্রেইন পি১’র জন্য এই অবস্থা বলে মনে করা হচ্ছে। সাও পাওলো, রিও ডি জেনেরিও’র পরিস্থিতি ভয়াবহ।

এ ব্যাপারে জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস বলেছেন, ব্রাজিলের পরিস্থিতি খুবই উদ্বেগজনক।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/একেএম


Source link

আরো সংবাদ

Back to top button