আইন-বিচার

পিকে হালদারের বান্ধবী অবন্তীর দোষ স্বীকার

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

ঢাকা: রিলায়েন্স ফাইন্যান্স ও এনআরবি গ্লোবাল ব্যাংকের সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচালক প্রশান্ত কুমার হালদারের (পিকে হালদার) বান্ধবী অবন্তীকা বড়াল আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

বিজ্ঞাপন

মঙ্গলবার (১৬ মার্চ) ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মাসুদ-উর-রহমানের আদালত তার জবানবন্দি রেকর্ড করেন।

তিন দিনের রিমান্ড শেষে অবন্তিকা বড়ালকে আজ আদালতে হাজির করা হয়। এরপর আসামি স্বেচ্ছায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিতে রাজি হওয়ায় তা রেকর্ড করার আবেদন করেন তদন্ত কর্মকর্তা মো. সালাউদ্দিন। জবানবন্দি রেকর্ড শেষে তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন আদালত।

বিজ্ঞাপন

গত ১৩ জানুয়ারি ধানমন্ডির ১০ নম্বর সড়কের একটি বাসা থেকে দুদকের উপ-পরিচালক মো. সালাহউদ্দিনের নেতৃত্বে একটি টিম তাকে গ্রেফতার করে।

জানা গেছে, পিকে হালদারের মামলার তদন্তে অবন্তীকার সম্পৃক্ততা পাওয়ায় তাকে গ্রেফতার করা হয়। এর আগে গত বছরের ২৮ ডিসেম্বর পিকে হালদারের ঘনিষ্ঠ সহযোগী ও বান্ধবী অবন্তীকা বড়ালকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তলব করা হয়েছিল। তবে ওই সময় তিনি হাজির হননি।

বিজ্ঞাপন

ক্যাসিনো অভিযানের ধারাবাহিকতায় তার বিরুদ্ধে এরইমধ্যে প্রায় ২৭৫ কোটি টাকা অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে পিকে হালদারের বিরুদ্ধে মামলা করে দুদক। ক্যাসিনোবিরোধী শুদ্ধি অভিযানের পরপরই পি কে হালদারের নাম উঠে আসে। পি কে হালদারের দুর্নীতির সংশ্লিষ্টতায় এখন পর্যন্ত ৮৩ ব্যক্তির প্রায় ৩০০০ কোটি টাকা ফ্রিজ করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন।

সারাবাংলা/এআই/এসএসএ


Source link

আরো সংবাদ

Back to top button