সারাদেশ

ভুল চিকিৎসায় প্রসূতির মৃত্যুর অভিযোগ, ক্লিনিকে স্বজনদের ভাঙচুর

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট

নারায়ণগঞ্জ: জেলা শহরের খানপুর এলাকায় সেন্ট্রাল জেনারেল হাসপাতাল নামে একটি বেসরকারি ক্লিনিকে ভুল চিকিৎসায় প্রসূতির মৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় সোমবার (১৫ মার্চ) রাত এগারোটার দিকে লাশ নিয়ে হাসপাতাল ঘেরাওসহ বিক্ষোভ এবং ভাঙচুর করে স্বজনরা।

বিজ্ঞাপন

স্বজনরা জানান, শহরের ডনচেম্বার এলাকার বাসিন্দা ফল ব্যবসায়ী জিসান আহমেদের গর্ভবতী স্ত্রী পান্না বেগমকে সোমবার দুপুর বারোটায় খানপুর এলাকার সেন্ট্রাল জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করানো হয়। বিকেলে খানপুর ৩oo শয্যা হাসপাতালের গাইনি চিকিৎসক মিশকাত জাহান হেনার তত্ত্বাবধানে অপারেশনের (সিজার) মাধ্যমে একটি কন্যা সন্তান জন্ম দেন তিনি। পরে পান্না বেগমের শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটলে চিকিৎসক তার শরীরে একটি ইঞ্জেকশন দেন। এতে তার অবস্থা আরও খারাপ হলে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ ঢাকা মেডিকেলে নিয়ে যাওয়ার পরামর্শ দেন। তবে সেখানে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এ খবর জানার পর স্বজন ও এলাকাবাসী লাশ নিয়ে এসে হাসপাতাল ঘেরাওসহ বিক্ষোভ ও কাঁচের আসবাবপত্র ভাঙচুর করেন। খবর পেয়ে সদর মডেল থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে।

বিজ্ঞাপন

পরিবারের অভিযোগ, সেন্ট্রাল হাসপাতালে ইঞ্জেকশন দেওয়ার পরপরই এই প্রসূতির মৃত্যু হয়। হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ মৃত্যুর বিষয়টি গোপন রেখে তাকে ঢাকায় নিয়ে যেতে বলে। তাদের কর্তব্যে অবহেলা ও ভুল চিকিৎসায় রোগির মৃত্যু হয়েছে দাবি করে স্বজনরা এর সুষ্ঠু বিচার চান।

তবে পুলিশ জানিয়েছে, এ ব্যাপরে এখন পর্যন্ত কেউ কোন অভিযোগ করেননি। অভিযোগ পেলে তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/এমও


Source link

আরো সংবাদ

Back to top button