সাহিত্য

বইমেলায় সাড়া জাগিয়েছে ‘কেউ কেউ পুরনো হয় না’

সিনিয়র নিউজরুম এডিটর

ঢাকা: শফিকুর রহমান শান্তনুকে নাট্যকার হিসেবেই সবাই চেনেন। কিন্তু গত কয়েক বছর ধরে একুশে বইমেলা উপলক্ষে তিনি উপন্যাস লিখছেন। ইতোমধ্যে তার রচিত সময় প্রকাশন থেকে প্রকাশিত ‘খামসূত্র’, তাম্রলিপি থেকে প্রকাশিত ‘গবলিন’ ও স্টুডেন্ট ওয়েজ থেকে প্রকাশিত ‘আমি অদ্ভুত মেয়ে’ পাঠকনন্দিত হয়েছে। তারই ধারাবাহিকতায় এ বছর তিনি লিখেছেন, ‘কেউ কেউ পুরনো হয় না’।

বিজ্ঞাপন

বইটি শোভা প্রকাশের প্যাভেলিয়ন ১৩ তে পাওয়া যাচ্ছে। প্রকাশনা সূত্রে জানা গেছে, ইতোমধ্যেই বইটির প্রথম মুদ্রণ শেষের পথে।

এ সম্পর্কে শফিকুর রহমান শান্তনু বলেন, ‘কেউ কেউ পুরনো হয় না প্রকাশের আগে থেকেই প্রি অর্ডার বেস্টসেলার লিস্টে ছিল। নিঃসন্দেহে এটা আনন্দের খবর কারণ উপন্যাসটি পাঠকের আগ্রহ তৈরি করেছে।’

বিজ্ঞাপন

সমকালীন প্রেক্ষাপটে লেখা একটি রোমান্টিক থ্রিলার কাহিনী কেন্দ্র করে বইটি আবর্তিত হয়েছে। বিনোদন শিল্পীদের মধ্যেও তার বইটি নিয়ে রয়েছে যথেষ্ট সাড়া। অভিনেত্রী নাট্যকার ও নির্দেশক নাজনীন হাসান চুমকি তার ফেসবুক স্টাটাসে বইটি সম্পর্কে লিখেছেন, ‘কেউ কেউ পুরনো হয় না এই বইটা আসলেই পুরনো হবে না। সম্পর্ক বন্ধুত্ব সততা অসততা সন্তান সাহিত্য সব স্পষ্টভাবে ভীষণ গুছিয়ে ব্যক্ত করা হয়েছে এই বইতে। বইটি পড়া উচিত সকলের।’

অভিনেত্রী উর্মিলা শ্রাবন্তী কর ফেসবুকে লিখেছেন, ‘আমি খুবই খুশি যে, আমি অনেকদিন পরে একটা দুর্দান্ত বই একটু সময় বেশি নিলেও পড়ে শেষ করতে পেরেছি। শান্তনু ভাইকে অনেক অনেক ধন্যবাদ খুবই ইউনিক এবং নতুন একটা স্টাইলে উনি ওনার এই বইটি সাজিয়েছে। প্রতিটা চ্যাপ্টার শেষ করেছি, মনে হয়েছে, এই চরিত্রটার গল্প কোনদিকে যাবে, কি করবে!! সবকিছু মিলিয়ে একটা অসাধারণ বই।’

বিজ্ঞাপন

সারাবাংলা/এএম


Source link

আরো সংবাদ

Back to top button