খেলা

নাসিরের ব্যাটে রান, আরিফুলের ৩ রানের আক্ষেপ

স্পোর্টস ডেস্ক

কার্যকারী পেস বোলিং করবেন এবং সাত-আটে ব্যাটে ঝড় তুলবেন- আরিফুর হককে এমন একজন অলরাউন্ডার হিসেবে গড়ে তুলতে কম চেষ্টা করা হয়নি। ক্রিকেট বোর্ডের এমন চেষ্টা কাজে আসেনি, আরিফুলের আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ার থেমে আছে ১২ ম্যাচেই। অনেকদিন ঘরোয়া ক্রিকেটেও রান পাচ্ছিলেন না। জাতীয় ক্রিকেট লিগে আজ সেই আক্ষেপ ঘুচল, তবে আরিফুল হয়তো আক্ষেপেও পুড়ছেন! ৯৭ রান করে আউট হয়েছেন রংপুর বিভাগের অধিনায়। এদিকে, রংপুরের হয়ে দ্বিতীয় রাউন্ডেও ব্যাট হেসেছে তারকা অলরাউন্ডার নাসির হোসেনের।

বিজ্ঞাপন

খুলনার ২২১ রানের জবাব দিতে নেমে আরিফুল-নাসিরের ব্যাটে ৩৬৪ রান তুলেছে রংপুর। পরে দ্বিতীয় ইনিংসে ১ উইকেটে ৪ রান তুলে দ্বিতীয় দিন শেষ করেছে খুলনা বিভাগ। অপর ম্যাচে সিলেটের ৩৭০ রানের জবাবে ৬ উইকেটে ২৩৯ রান তুলে দ্বিতীয় দিন শেষ করেছে ঢাকা বিভাগ।

রংপুর ক্রিকেট গার্ডেনে ৩ উইকেটে ১০৩ রান নিয়ে আজ দ্বিতীয় দিন শুরু করেছিল রংপুর। নাসির অপরাজিত ছিলেন ১৯ রানে, তার সঙ্গে ২৯ রানে দিন শুরু করেছিলে তানভির হায়দার। দিনের শুরুতেই ৩১ রানে ফিরেছেন তানভির। তারপর নাসির-আরিফুলের প্রতিরোধ। পঞ্চম উইকেটে ৭৬ রান যোগ করেন দুজন। প্রথম রাউন্ডে সেঞ্চুরি করা নাসির ৯ চারে ৬৬ রান করে ফিরেছেন। আরিফুল কাটা পড়েছেন সেঞ্চুরির একদম কাছে গিয়ে।

বিজ্ঞাপন

১৬৪ বল খেলে ১১টি চারের সাহায্যে ৯৭ রান করে মাসুম খানের বলে এলবিডব্লিউ হয়েছেন। তারপর উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান ধীমান ঘোষ ৪৩ রানের একটা ইনিংস খেললে রংপুরের প্রথম ইনিংস থামে ৩৬৪ রানে। খুলনার হয়ে মাসুম ৭৮ রানে চার উইকেট নিয়েছেন। পরে দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করতে নেমে শুরুতেই ওপেনার রবিউল ইসলাম রবিকে হারায় খুলনা।

কক্সবাজারের শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামের একাডেমি মাঠে অপর ম্যাচ ৬ উইকেটে ২৮২ রান নিয়ে দ্বিতীয় দিন শুরু করা সিলেট শেষ পর্যন্ত গুটিয়ে গেছে ৩৭০ রানে। দলটির পক্ষে আজ ৬৭ রানের দারুণ এক ইনিংস খেলেছেন আব্দুল্লাহ আল গালিব। ঢাকার হয়ে চার উইকেট নিয়েছেন সোহরাওয়ার্দী শুভ।

বিজ্ঞাপন

শুভ পরে ব্যাটিংয়েও ঢাকার হয়ে দিনের সেরা ব্যাটিংটা করলেন। শুরুতেই ওপেনার আব্দুল মজিদকে হারানো ঢাকাকে প্রথমে টেনে তুলেছেন জয়রাজ শেখ ও সাইফ হাসান। দুজনের ৮২ রানের জুটিতে সাইফ করেছেন ৪২ রান, জয়রাজ ৪১। এই দুজনের সঙ্গে ফিরেছেন মেহেদি হাসান অঙ্কন (২) ও তাইবুর রহমানও (৩)। ৬ রানের ব্যবধানে হঠাৎ-ই চার উইকেট হারিয়ে বিপদে পড়ে যায় ঢাকা। সেখান থেকে প্রতিরোধ গড়েছেন শুভ

দিন শেষে ৯৫ বল খেলে ১১টি চার ১টি ছয়ে ৮৯ রানে অপরাজিত তিনি। তার সঙ্গে ৩৪ রানে দিন শেষ করেছেন আরাফাত সানি জুনিয়র। সিলেটের হয়ে তিন উইকেট নিয়েছেন রাহাতুল ফেরদাউস।

বিজ্ঞাপন

বাংলাদেশ ও নিউজিল্যান্ডের মধ্যকার চলমান সিরিজটি বাংলাদেশের দর্শকদের জন্য সরাসরি সম্প্রচার করছে জিটিভি এবং দেশের বহুল পরিচিত অনলাইন প্ল্যাটফর্ম র‍্যাবিটহোল। ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি সিরিজের সবগুলো ম্যাচ র‍্যাবিটহোলের ওয়েবসাইটের সঙ্গে সঙ্গে দেখা যাচ্ছে ইউটিউবেও। র‍্যাবিটহোলের ওয়েবসাইট www.rabbitholebd.com এবং ইউটিউব চ্যানেলেও প্রত্যেকটি ম্যাচ দেখা যাচ্ছে বিনামূল্যেই।

সারাবাংলা/এসএইচএস


Source link

আরো সংবাদ

Back to top button